1. bappy.ador@yahoo.com : admin :
  2. hostctg@gmail.com : Sports Editor : Sports Editor
  3. Onlynayeemkhanbd@gmail.com : Admin admin : Admin admin
  4. editor@sports-gossip.com : Edotpr Edotpr : Edotpr Edotpr
শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:১৭ অপরাহ্ন

টাইগারদের বিশ্বকাপ দল নিয়ে নতুন যে দুশ্চিন্তায় পাপন

  • সময় রবিবার, ১২ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ২৬ পঠিত

টাইগারদের বিশ্বকাপ দল নিয়ে নতুন যে দুশ্চিন্তায় পাপন

নিউজিল্যান্ড অস্ট্রেলিয়ার সাথে বাংলাদেশ দল প্রথমবারের মতো জিতেছে কোন টি-২০ সিরিজ।মিরপুরের স্লো পিচে বোলারদের দাপটে সিরিজ জিতলেও ব্যাটসম্যানরা ছিল পুরাপুরি ব্যর্থ।

বিশেষ করে বাংলাদেশের টপ অর্ডাররা ছিলেন অনেকটাই অ ধা'রাবাহিক।বিশ্বকাপের আগে বাংলাদেশ দলের টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানদের এমন ব্যর্থতায় অনেকটাই চিন্তিত বাংলাদেশে ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।

গত জুলাই মাসে জিম্বাবুয়ের মাটিতে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জয়ে বড় ভূমিকা রাখেন বাংলাদেশ দলের টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানরা।কিন্তু ঘরের মাঠে আস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ড সিরজে পুরাপুরি ব্যর্থ ছিলেন

সৌম্য,নাইম,লিটন,সাকিবরা।অস্ট্রেলিয়া সিরিজে বাংলাদেশ দল জিম্বাবুয়েতে সফল দুই ওপেনার সৌম্য ও নাঈমকে সুযোগ দেয়। কিন্তু কন্ডিশন ও প্রতিপক্ষ দলের বোলিংয়ের সামনে কোনো জুটিই গড়তে পারেনি এই দুই বাঁহাতি।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে লিটন দাস দলে ফেরায় বাদ পড়েন সৌম্য। নাঈমের স'ঙ্গে সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে ৫৯ রানের জুটি গড়েন লিটন। এ ছাড়া বাকি ম্যাচগু'লোয় লিটন ছিলেন ব্যর্থ। নাঈম প্রায় প্রতি ম্যাচেই ভালো শুরু করেছেন। কিন্তু বড় ইনিংস খেলতে পারেননি এই বাঁহাতি।

এক বছরের নিষে'ধাজ্ঞার পর আন্তর্জাতিক ক্রিকে'টে ফিরে এসে সাকিব যেন টি-টোয়েন্টি ব্যাটিংয়ের ছন্দটাই ধরতে পারছেন না।জিম্বাবুয়ে সিরিজ থেকে এই পর্যন্ত ১২ টা টি-২০ খেলছেন তিনি,

যেখানে তার সর্বোচ্চ ইনিংস ৩৬ রানের।তার মতো ব্যর্থ আরেক অ'ভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিমও।জিম্বাবুয়ে-অস্ট্রেলিয়া সিরিজে না থাকলেও নিউজিল্যান্ডের সাথে ৫ ম্যাচ ব্যাটিং করে করেন মাত্র ৩৯ রান।

বিশ্বকাপের আগে দলের ব্যাটিংয়ের এমন হাল নিশ্চয়ই ভালো বার্তা দেয় না। কাল বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসানও এ নিয়ে দুশ্চিন্তা প্রকাশ করেছেন। সাংবাদিকদের তিনি বলেছেন, ‘আ মর'া প্রথম ছয় ওভারের সুবিধাটাই নিতে পারছি না।’

তবে টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানরা ব্যর্থ হলেও মিডেল অর্ডারে অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ ও আফিফ ছিলেন নির্ভরতার প্রতীক হিসেবে।নিউজিল্যান্ড সিরিজের পাঁচ ম্যাচে অধিনায়কের ব্যাট থেকে এসেছে ৬০ গড়ে ১২০ রান।

অন্যদিকে তরুণ তুর্কি আফিফ হাসান জিম্বাবুয়ে সিরিজ থেকেই ধা'রাবাহিকভাবে ভালো করে আসছেন। ধা'রাবাহিকতা ধরে রেখেছিলেন আস্ট্রেলিয়া সিরজেও।

কিন্তু নিউজিল্যান্ড সিরিজে ব্যাটিংয়ের সুযোগ খুব একটা পাননি এই বাঁহাতি।সিরিজের শেষ ম্যাচে সুযোগ পেয়ে করেছেন অ'পরাজিত ৪৯ রান। বিশ্বকাপের আগে যা বাংলাদেশ দলের জন্য সুখবর।

খবরটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর..
কপিরাইট © ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | স্পোর্টস গসিপ.কম
Theme Customized By Sports Gossip
error: Content is protected !!