1. bappy.ador@yahoo.com : admin :
  2. hostctg@gmail.com : Sports Editor : Sports Editor
  3. Onlynayeemkhanbd@gmail.com : Admin admin : Admin admin
  4. afnafrahel@gmail.com : afnafrahel@gmail.com Sports : afnafrahel@gmail.com Sports
শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৫:২৭ পূর্বাহ্ন

সাকিবের স্টাম্প ভাংগার দিনে আবহনীকে ৫ বছর পর হারালো মোহামেডান

  • সময় শুক্রবার, ১১ জুন, ২০২১
  • ৬৭ পঠিত

এ যেন নব্বইয়ের দশকের মো হা'মেডান ও আবাহনীর লড়াই। মাঠের বাইরে উত্তেজনাটা আগের মতো না থাকলেও এদিন ঠিকই মাঠ উত্তাপ টের পাওয়া গেল। আর এর সবকিছুই এলো সাকিব আল হাসানকে ঘিরে। মাঠে আম্পায়ারের স'ঙ্গে তর্কে লিপ্ত হলেন। স্বল্প সংখ্যক দর্শকের স'ঙ্গেও চলল উত্তেজনা। আর এমন ম্যাচে জয় পেয়েছে মো হা'মেডান। ২০১৫-১৬ মৌসুমের পর এই প্রথম জয় পেল দলটি।

মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে শুক্রবার আবাহনী লিমিটেডকে বৃষ্টি আইনে ৩১ রানে হারিয়েছে মো হা'মেডান স্পোর্টিং ক্লাব। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকে'টে ১৪৫ রান করে তারা। জবাবে বৃষ্টি আইনে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকে'টে ৪৪ রানের বেশি করতে পারেনি আবাহনী।

জয় পরাজয় ছাপিয়ে এদিন ম্যাচের মূল আলোচনা ছিল সাকিবকে নিয়েই। ব্যাটিংয়ে নেমে ছন্দে ফেরার আভাস দিয়েছিলেন। তার ব্যাটে চড়েই লড়াইয়ের পুঁজি পায় দলটি। তবে বোলিংয়ের সময় মাঠে তার আচরণে 'হতবাক সবাই।

তবে লক্ষ্য তাড়ায় আবাহনীর শুরুটাই ছিল ভ'য়াবহ। ৩ বলে ২টি উইকে'টে তুলে নেন শুভাগত হোম। মো হা'ম্ম'দ নাঈম ও একেএস স্বাধীনকে বোল্ড করে দেন এ অফস্পিনার। পরের ওভারে এসে আফিফ হোসেনকেও বিদায় করেন শুভাগত। তাতে বড় চাপে পড়ে যায় দলটি।

যতো নাটক হয় পঞ্চম ওভারের শেষ বলে। দারুণ এক ডেলিভারিতে এলবিডাব্লিউর আবেদন করেন সাকিব। কিন্তু আম্পায়ার তা নাকচ করে দেওয়া 'ক্ষেপে যান এ দেশ সেরা অলরাউন্ডার। লাথি মেরে স্টাম্প ভেঙে ফেলেন। এমনকি আম্পায়ারকেও শাসান।

পরের ওভারের পঞ্চম বলের সময় নামে বৃষ্টি। কিন্তু ড্রেসিং রুমে ফেরার সময় ফের স্টাম্প তুলে আছাড় মা'রেন সাকিব। তবে সতীর্থরা তাকে শান্ত করে নিয়ে যান। যাওয়ার সময় দর্শকদের স'ঙ্গেও বাগবিতণ্ডা হয়ে যায়। আবাহনীর রান তখন ৩ উইকে'টে ৩১।

প্রায় ঘণ্টা দেড়েক পর (৮১ মিনিট) বৃষ্টি থামলে আবাহনীর লক্ষ্য দাঁড়ায় ৯ ওভারে ৭৬ রান। অর্থাৎ শেষ ১৯ বলে ৪৫ রান। তবে সে লক্ষ্যে মাত্র ১৩ রান যোগ করতে পারে তারা। ৩ রান যোগ করতেই বোল্ড নাজমুল হোসেন শান্ত। আর ৮ রান যোগ করতে ফিরে যান মোসাদ্দেক হোসেন ও মো হা'ম্ম'দ সাইফউদ্দিনও।

এর আগে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালোই করে মো হা'মেডান। পারভেজ হোসেন ইমনের স'ঙ্গে ওপেনিং জুটিতে ৩৭ রান করেন এ আসরে প্রথমবারের মতো খেলতে নামা আব্দুল মজিদ। এরপর ইমন ফিরে গেলে ইরফান শুক্কুরের স'ঙ্গে করেন ২৪ রানের জুটি। তবে রানের গতি সে অর্থে বাড়াতে পারেননি। পাওয়ার প্লেতে আসে ৩৯ রান।

এরপর মজিদের বিদায়ের পর মাত্র ৭ রানের ব্যবধানে ৩টি উইকেট হারিয়ে বড় চাপে পড়ে মো হা'মেডান। এ সময় অধিনায়ক সাকিবকে নিয়ে দলের হাল ধরেন মাহমুদুল হাসান। গড়েন ৪৬ রানের জুটি। তাতেই লড়াইয়ের পুঁজি পায় ঐতিহ্যবাহী দলটি।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৩৭ রানের ইনিংস খেলেন সাকিব। ২৭ বলে ১টি চার ও ২টি ছক্কায় এ রান করেন তিনি। ২২ বলে ২টি চার ও ১টি ছক্কায় ৩০ রানে অ'পরাজিত থাকেন মাহমুদুল। ইমনের ব্যাট থেকে আসে ২৬ রান। আবাহনীর পক্ষে একেএস স্বাধীন ২৪ রানের খরচায় ৩টি উইকেট পান। ১৭ রানের বিনিময়ে ২টি উইকেট পান তানজিম হাসান সাকিব।

খবরটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর..
কপিরাইট © ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | স্পোর্টস গসিপ.কম
Theme Customized By Sports Gossip
error: Content is protected !!